ময়ুখ চৌধুরী – Moyukh Chowdhury

image_pdf

ময়ুখ চৌধুরী বাংলাদেশের সাহিত্যে এক অনিবার্য ও দুর্দমনীয় নাম। তাঁর পরিচিতি একাধিক কারণে পরিব্যাপ্ত। সাহিত্যের নানা ক্ষেত্রে তাঁর কৃতিত্ব ও প্রয়াস তাঁকে গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিত্বরূপে প্রতিষ্ঠিত করেছে। শিল্পসচেতন কবি হিসেবে, বিরল প্রসাদগুণসম্পন্ন প্রাবন্ধিক ও পরিশ্রমী গবেষক হিসেবে তাঁর অধিষ্ঠান তর্কাতীত। বোধে, অনুভবে ও পারঙ্গমতায় তিনি মনে প্রাণে সৎ, সাহসী ও শুদ্ধ।
তাঁর কবিতার সৌন্দর্য এতোটাই স্পর্শকাতর ও অপূর্ব যে, পাঠক কবিতাটি পাঠ করা মাত্রই পৌঁছে যান এক স্বপ্নিল ও রহস্যময় জগতে, যেখানে এক ঐতিহ্যমণ্ডিত শিল্পের প্রতিচ্ছবি কবি দৃশ্যময় করে তোলেন। ভাষার বলিষ্ঠতা ও সুরের গতিময়তা তাঁর দুর্বোধ্য ও জটিল ভাবনাকেও সুখপাঠ্য করে দেয়। কি শব্দ প্রয়োগে, কি বক্তব্যে, কি বিন্যাসে, কি আঙ্গিকে, কি উপমায়, কি ছন্দে তিনি এক মেধাবী কবি।

নানা বিষয়ে কবিতা নির্মাণের দক্ষ কারিগর ময়ুখ চৌধুরী। সমকালীন জীবন যন্ত্রণার বিশ্বস্ত রূপকার তিনি, তিনি ঐতিহ্যমুখী। তবু বিশেষভাবে বলা যায়, রোমান্টিক প্রেমের কবিতায় তিনি সিদ্ধহস্ত। তাঁর কবিতার অন্যতম প্রধান বিষয় প্রেম ও নারী। শব্দের সিঁড়ি বেয়ে ছন্দের দোলায় দুলে তাঁর কবিতা পৌঁছে যায় পাঠকের অন্তরে। তাঁর কবিতা যেমন চিত্ররূপময়, তেমনি যথেষ্ট শরীরী।
তাঁর ভাষা সুরেলা, কিন্‌তু বক্তব্য ঋজু। তিনি অকপটে সাজাতে পারেন মনের সব কথা, অবলীলায় বলতে পারেন ছন্দের কারুকার্যে। প্রেমের জয়গান গেয়ে এগিয়ে গেলেও ময়ুখ চৌধুরী সচেতন তাঁর মননশীলতার বিষয়ে। প্রেমের আর্তি আকুলতার চিত্র আঁকতে গিয়ে তিনি কেবল সুন্দরের অনুসন্ধান করেছেন।

ময়ুখ চৌধুরী জন্মেছেন ১৯৫০ সালের ২২ অক্টোবর চট্টগ্রামে। বেড়ে উঠেছেন কর্ণফুলীর পাড়ে। জলের কল্লোলে। বাংলা ভাষা ও সাহিত্যে অনার্সসহ এম এ ডিগ্রি নেন ১৯৭৩ সালে।

১৯৭৮–৮৩ সালে পিএইচ. ডি করেছেন কলিকাতা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে। ‘শামসুর রাহমান: এক আধুনিক কবি’ গবেষণার তত্ত্বাবধায়ক ছিলেন ড. আবু হেনা মোস্তফা কামাল এবং রবীন্দ্রকাব্য বিষয়ে গবেষণা তত্ত্বাবধায়ক ছিলেন ড. অসিত কুমার বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রথম লেখা প্রকাশ: ১৯৬৫ সাল। তাঁর প্রকাশিত গ্রন্থের মধ্যে রয়েছে: কালো বরফের প্রতিবেশী (কাব্যগ্রন্থ), অর্ধেক রয়েছি জলে অর্ধেক জালে (কাব্য), তোমার জানলায় আমি জেগে আছি চন্দ্রমল্লিকা (কাব্য), ঊনিশ শতকের নবচেতনা ও বাংলা কাব্যের গতিপ্রকৃতি (গবেষণাগ্রন্থ) প্রভৃতি। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. ময়ুখ চৌধুরী সংসার করছেন আরেক অধ্যাপক কবি তাসলিমা শিরিনের সঙ্গে।

=================  ছড়িয়ে দিন ইচ্ছেমত  ===============

Be the first to reply

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *