image_pdf

পিচ্চি বর Vs বাচ্চা বউ

– ওকে করবো না। বাট আমার একটা ইচ্ছে পূরন করতে হবে( তুই নিজে মিথ্যা বলিস তাও বুঝতে পারলি না আমি তোকে এখন মিথ্যা বললাম।)
— কি ইচ্ছে? (ভয়ে ভয়ে)
— আমাকে লিপ কিস করতে দিতে হবে তাও আমি যত ক্ষন চাইবো।
— কিহ? কি বললি তুই, তোর কি মাথা খারাপ হয়েছে ( অবাক হয়ে)
— আমার মাথা ঠিকি আছে।আমি তোর নেশায় হারিয়ে গেছি।তোর ঠোটে অদ্ভুত এক স্বাদ আছে আমি সেই স্বাদ আবার নিচে চাই।
— ছিঃ তোর লজ্জা […]

Please Rate This Post
[Total: 4 Average: 3.3]
Continue Reading

এক টুকরো অভিমান

তরী রিক্সা ছেড়ে দিয়ে ফুটপাত দিয়ে হাঁটছিলো।আর একটু সামনেই ওদের বাড়ি।অন্য কেউ হলে, হয়ত এখানে খামোখা রিক্সা ছেড়ে দিতো না।আজ সারাটা দিন তরীর খুব ভাল কেটেছে।ঠিক যেমনটা সে চেয়েছিলো।তরী বজলুর রহমান সাহেবের একমাত্র মেয়ে।তরীর বয়স যখন মাত্র পাঁচ, তরীর মা আদর রহমান এই ভুবনের মায়া ছেড়ে পাড়ি জমালেন মেঘেদের দেশে।মা – বাবা দুজনের আদর দিয়ে বজলুর রহমান সাহেব মেয়েকে বড় করেছেন।কিছু সময়ে পেরেছেন আবার, কোন কোন ক্ষেত্রে হয়ত পুরোপুরি পারেন নি।একজন বাবা কি সত্যিই পারে, মায়ের শূণ্যতা পূরণ করতে ?!
তবে, তরীর কোন আবদার তিনি অপূর্ণ রাখেন নি।তবে, গতপরশু মেয়ের অদ্ভুত ইচ্ছেটা তাকে খানিকটা বিস্মিত করলো।তরী তার জীবনে মোট কতবার রিক্সাতে উঠেছে, তা হাতে গুণে প্রথমে বজলুর সাহেবকে বলতে শুরু করলো।তাছাড়া প্রতিদিন ইউনিভার্সিটিতে যাবার সময় ড্রাইভার মজনু মিয়ার বকবকানিতে, সে রীতিমতো অস্হির হয়ে পড়ে।তার দৃষ্টিতে, তরী এখনো হয়ত দশ কিংবা বারো বছরের একটা বাচ্চা মেয়ে।তাই, সব কথায় তাকে অহেতুক জ্ঞান বন্টনের অপচেষ্টা ইদানিং সীমা ছাড়িয়ে যাচ্ছে।অথচ, প্রতিদিন রিক্সায় যাওয়া গেলে, দিনগুলো কি এমন বৈচিত্র্যহীন হতো ! […]

Please Rate This Post
[Total: 0 Average: 0]
Continue Reading

মটরশুটি রাজকন্যা

এক কালে ছিল এক রাজপুত্র যার এক রাজকন্যাকে বিয়ে করার ইচ্ছা ছিল। তাকেই সে বিয়ে করবে যে একজন প্রকৃত রাজকন্যা। সেই রাজকন্যাকে খুঁজে বের করার উদ্দেশ্যে সে পৃথিবীর সবত্র ভ্রমণ করলো। কিন্তু সব জায়গাতেই বিভ্রান্তি দেখা দিল। অসংখ্য রাজকন্যা ছিল, কিন্তু তারা প্রকৃত রাজকন্যা কি না তা সে কিভাবে জানবে? […]

Please Rate This Post
[Total: 0 Average: 0]
Continue Reading

অপ্রকাশিত ভালোবাসা

কোন এক বসন্তের প্রাণবন্ত সকাল। অনির্দিষ্টের মতো ছেলেটা একটা শপিং কমপ্লেক্সের ভিতর এদিক-সেদিক ঘোরাঘুরি করতে থাকে। একসময় তার চোখ পড়ে যায় একটা CD-স্টোরের কাউন্টারে দাঁড়ানো খুব সুন্দর একটা মেয়ের দিকে। মেয়ের হাসিটা ছিল অপূর্ব রকমের সুন্দর , ছেলেটা প্রথম দেখায় মেয়েটার প্রেমে পড়ে যায়। এটাই মনে হয়, Love At First Sight. […]

Please Rate This Post
[Total: 24 Average: 3.8]
Continue Reading

dui bondhu – দুই বন্ধ

প্রায় বারো বছর হয়ে গেল, ভুতো আর রনির মধ্যে কোন যোগাযোগ নেই। ভুতো কেমন আছে , কোথায় আছে , বিয়ে-থা করেছে কিনা … কোন তথ্যই জানা নেই রনির।  আশ্চর্যের ব্যাপার হল, ভুতোর কথা আর মনেই পরে না ওর। আজ অনেক বছর বাদে পুরণ স্কুলের সামনে দিয়ে যাওয়ার সময় হঠাৎই মনে পরল ভুতো কে। ছিপ ছিপে লম্বা, শ্যামলা গড়ন, বড়বড় ঝাঁকড়া ছুল- চোখ বন্ধ করলে এখনও স্পষ্ট ভাসে ছেলেটার চেহারা। […]

Please Rate This Post
[Total: 16 Average: 2.9]
Continue Reading

ছোট গল্প: আত্মগোপন

তৃষ্ণা বসাক গল্প ছাড়াও লিখে থাকেন কবিতা, উপন্যাস, প্রবন্ধ এবং ছোটদের জন্য কল্পবিজ্ঞানের গল্প। তাঁর টুপিতে রয়েছে মৈথিলি থেকে বাংলায় অনুবাদের ক্রিয়াশীলতাও। একাধিক পুরস্কারে ভূষিত তৃষ্ণার গল্প আজ।

এই শহরে আগে আসেনি সুনীল। সুনীল চন্দ্রোথ। বরাবর কোচিতে থাকে। আজন্ম। কিন্তু এ শহরের সঙ্গে ওর একটা গভীর যোগ আছে। ওর বাবা একবার এখানে এখানে আত্মগোপন করে ছিলেন। মিস্টার কেশবনের বাড়িতে, ভবানীপুরে রূপচাঁদ মিত্র লেন। এইটুকু সম্বল করে সুনীল যখন নেতাজী সুভাষ এয়ারপোর্টে নামল তখনো ভালো করে বিকেল হয়নি। ১০. ৪৫- এ কোচি থেকে ছেড়ে মোটের ওপর ঠিকঠাক এসেছে বলা যায়। লাগেজ টাগেজ কালেক্ট করে মালিনীকে একটা ফোন করল সুনীল। ফোনটা বেজে গেল। হয়তো মিটিং -এ আছে। সে একটা এস. এম. এস. করে দিল ‘রিচড কলকাতা  সেফলি’।  মালিনী বেশিরভাগ সময় মোবাইল ডেটা অফ করে রাখে, তাই হোয়াটসঅ্যাপ করলে  নাও দেখতে পারে। মেসেজটা পাঠানর পর একটা কফি নিয়ে ধীরেসুস্থে চুমুক দিল । চারটে এখনও বাজেনি। ওর হাতে অনেক সময়। সুজাতা ছটার আগে আসবে না।  ওর স্কুল ছুটি হয় সোয়া পাঁচটা, সেখান থেকে একটা অটোতে ও চলে আসবে অ্যাক্রোপলিস মলে, সেখান থেকে ও সুনীলকে নিয়ে যাবে একটা গেস্ট হাউসে। সুনীল জিগ্যেস করেছিল, ‘সোজাই তো গেস্ট হাউস চলে যেতে পারি আমরা। আবার মল  কেন?’ আসলে এসব মল-টল তার একটুও ভালো লাগে না। তার ভালো লাগে ছোট ছোট দোকান, জীবন্ত মুখ চোখের দোকানী, যারা রাতের দিকে দোকান ফাঁকা থাকলে জীবনের সব কাহিনি উজাড় করে দেয়। ছাপাখানার মালিক কেশবনের এরকম কাহিনি ছিল? কে জানে? […]

Please Rate This Post
[Total: 9 Average: 3.2]
Continue Reading

ছোট গল্প: গন্ধ

পেশায় ডাক্তার চন্দন ঘোষের নিবাস উত্তর ২৪ পরগনার বারাসাতে। ইতিমধ্যেই তিনটি পুস্তক প্রকাশিত হয়েছে তাঁর, প্রকাশ পেতে চলেছে আরও দুটি। আজ চন্দনের গল্প।

গন্ধটা তাড়া করে বেড়াচ্ছে অঞ্জনকে। আর তাড়া করে বেড়াচ্ছে ছোট উজ্বল সুন্দর দুটো চোখ।  কোথাও স্বস্তিতে দুদন্ড বসতে দিচ্ছে না। পাশের ঘরটার বন্ধ দরজার দিকে তাকালেই কেমন যেন একটা ভয় চেপে বসছে ওকে। দরজা খুললেই ঝাঁপ দিয়ে ঢুকে পড়বে সেই তীব্র গন্ধটা। উগ্র, পচা, নরক থেকে উঠে আসা সেই গন্ধ যেন অঞ্জনের আত্মাকে পর্যন্ত নোংরা করে দিচ্ছে। কিন্তু কোথা থেকে আসছে ওই গন্ধটা? সব তো তন্নতন্ন করে খোঁজা হল! […]

Please Rate This Post
[Total: 7 Average: 3.6]
Continue Reading

ছোট গল্প: ক্রায়োনিকস

ভিন্ন মহাদেশ, ভিন্ন ধারায় শিক্ষা, গবেষণা ও পেশা, তবু বাংলা ভাষার প্রতি পরম প্রেম ও গল্পরচনার প্রতি তীব্র আকিঞ্চন তাঁকে জাগিয়ে রাখে সাহিত্যের সমুদ্রে। একযুগেরও বেশি সময় ধরে সারস্বতসাধনায় নিমগ্ন ইন্দ্রাণী দত্তের গল্প প্রকাশিত হল…

মনা দত্ত […]

Please Rate This Post
[Total: 4 Average: 2.8]
Continue Reading

ছোট গল্প: জীবন যেরকম

 ইলেক্ট্রিক সাপ্লাই কর্পোরেশনের কর্মী অরিজিৎ গুহ কলেজ জীবন থেকে লেখালিখি শুরু করেছেন। একটি ছোট সাহিত্য পত্রিকার সঙ্গেও যুক্ত রয়েছেন তিনি। সেখান থেকেই বেরিয়েছে তাঁর একমাত্র বই। আজ অরিজিতের গল্প।

উত্তর কলকাতার এক এঁদো গলির মুখে কর্পোরেশনের ঝকঝকে স্ট্রিট লাইটের আলোতে গলিটা আলোয় ঝলমলে হয়ে রয়েছে। গলির একেবারে শেষ প্রান্তে গলিটা বাঁক নিয়েছে আরেক তস্য গলির মুখে। আলো সেই অব্দি পৌঁছায় না।তস্য গলিতে বাড়ি বলতে একটাই। পুরনো দিনের একতলা একটা বাড়ি। সেই বাড়ির বাড়িওয়ালা নিজে থাকে না, একজন ভাড়াটেকে ভাড়া দিয়ে রেখেছে, কিন্তু সেই ভাড়াটে ভদ্রলোক যে কে তা কেউ জানে না।কোনো ভোটার এখানে থাকে না বলেই হয়ত কর্পোরেশনের দৃষ্টি সেই তস্য গলি অব্দি পৌঁছায়নি। […]

Please Rate This Post
[Total: 4 Average: 2.8]
Continue Reading

ছোট গল্প: ছায়ামানবী

ছোট গল্প: ছায়ামানবী

দীর্ঘদিন ধরে অনুবাদের কাজে ব্যাপৃত রয়েছেন ঈশানী রায়চৌধুরী। ইংরেজি থেকে বাংলায় তিনি কর্তৃক ভাষান্তরিত কাহিনির সংখ্যা বড় কম নয়। তার সঙ্গে রয়েছে নিজের লেখালিখিও।

এই বাড়িটায় আমরা থাকি। আমরা মানে আমি, সমীরণ আর অঞ্জন। আমার নাম স্বাতী। সমীরণ আমার বর। আমাদের বিয়ের বয়স বছর তিনেক। এখনও আমাদের কোনও ছেলেমেয়ে হয়নি। অঞ্জন সমীরণের বন্ধু। ওর বিয়ে থা হয়নি যদিও, নিত্যিনতুন বান্ধবীর অভাব নেই! আর বিদেশ-বিভূঁইয়ে এ সব নিয়ে তেমন মাথাও ঘামায় না কেউ। […]

Please Rate This Post
[Total: 6 Average: 1.8]
Continue Reading

Doctor Bou – Part( 5 ) | ডাক্তার বউ – পার্ট( ৫ )

Doctor Bou

তুলিকে বুঝাতে হবে প্রিয় মানুষের একটু অবহেলা কেমন লাগে! অবশ্য তুলি অনেক বার ফোনে ট্রাই করেছে আমার সাথে কথা বলার জন্য কিন্তু আমি ফোন রিসিভ করিনি! এক সপ্তাহ পরে ,,,,,
একদিন অফিস থেকে বাসায় তুলির কথা খুব মনে হচ্ছে !
হাসপাতাল থেকে আসার পর একদিনও তুলির সাথে দেখা হয় নাই!
তুলিকে দেখতে খুব ইচ্ছে হচ্ছে! মন থেকে তুলির জন্য ছট ফট করছে! আসলে আমাদের মনটা খুবয় বিয়াদপ যেই মানুষগুলো সবচেয়ে বেশি অবহেলা করে সেই মানুষগুলোর কাছে বার বার ফিরে যেতে মন চাই! অনেক ভেবে চিন্তে সিদ্ধান্ত নিলাম তুলিকে ক্ষমা করে দিবো আসলে তুলিকে অনেক আগেই ক্ষমা করে দিছি! আমার যায়গায় কেউ হয়লে হয়তো ক্ষমা করতে পারতো কিনা জানি না! আমি তুলির ভালোবাসায় বড্ড বেশি দুর্বল হয়ে পরছি! […]

Please Rate This Post
[Total: 36 Average: 3.5]
Continue Reading

চশমাওয়ালা ছেলেটি – পার্ট( ২ ) | Chosmawala Cheleti – Part( 2 )

Chosmawala Cheleti

নাহিদ আনহার দিকে তাকিয়ে আছে । কেন যে সে নিজেও জানে না । কেন জানি মায়ার জালে সে তাকিয়ে আছে ।হঠাৎ কে জানি ধাক্কা দিলো নাহিদ কে ।
নাহিদ : ও জাহিদ তুই
জাহিদ : কি দেখিস ভাবি পছন্দ হলো নাকি
নাহিদ : হুম
জাহিদ : কিইইইইই ?
নাহিদ : না কি বলিস আমি কেনো পছন্দ করবো চল চল ওদিক যাই
জাহিদ : (ভাবছে ডাল মে কুচ কালা হ্যা )
আচ্ছা চল । […]

Please Rate This Post
[Total: 28 Average: 3.8]
Continue Reading

চশমাওয়ালা ছেলেটি – পার্ট( ১ ) | Chosmawala Cheleti – Part( 1 )

Chosmawala Cheleti

আমি আনহা আর আমার বেস্টুর নাম শাম্মি । আজ আমাদের দুজনের ই কলেজ লাইফের প্রথম দিন । আমার ব্যাখ্যা দিতে গেলে শেষ হইবো না আমি হলাম ফাজিলের নাতনি । এতো ফাজলামি করি যে শেষ ই হয় না আর শাম্মি শান্ত আবার ফাজিলও । শাম্মি আর আমার পছন্দ প্রায় একই। মাঝে মাঝে বলি দুজনই একই রকম পোলা কে বিয়া করুম । কিন্তু তা তো হয় না । যাই হোক এখনো আসছে না কেন । ওই মাইয়া নির্ঘাত ঘুম থেকে লেট উঠছে । আজ অব্দি যতোবার বলছি আসতে আমার বাড়ি ওয় লেট ই হইছে। […]

Please Rate This Post
[Total: 21 Average: 3]
Continue Reading

বস যখন গার্লফ্রেন্ড – পার্ট( ৩ ) | Boss Jokhon Girlfriend – Part( 3 )

Boss-Jokhon-Girlfriend-Part-3

ভাবতাছি কালকেই রিজাইন লেটার টা দিয়ে দিবো।
তাই লেটারটা লিখে রাখলাম।
পরের দিন অফিসে গিয়ে ম্যামের হাতে রিজাইন লেটারটা দিয়ে চলে আসলাম।
শেষবারের মতো দেখে নিলাম নিলিমাকে।
ওকেমন করে যেনো তাকিয়ে ছিলো আমি বুঝতে পারলাম
ও আমাকে ভালোবাসে কিন্তু আমার সাথে ওর যায়না।
তাই চলে আসলাম ওখান থেকে।
সেদিন যেমনটা ও চলে আসছিলো।তবে ওর আর আমার
মধ্যে অনেক পার্থক্য।
জানিনা আর দেখা হবে কিনা তবে আমি ওকে এখনো অনেক ভালোবাসি।তাইতো চলে আসলাম।
রাতে খেয়ে দেয়ে বাবা মার সাথে কথা বলতাছি তখন
স্যার এর ফোন এলো
আমি জানতাম উনি ফোন দিবেন তাই কি কি বলা লাগবো সব আগে থেকেই গুছিয়ে নিয়েছি।
কিন্তু উনি ফোন করে যা বললেন তার উত্তর দেওয়ার ভাষা আমার ছিলোনা।
আমি ফোনটা ধরলাম
– আসসালামু আলাইকুম স্যার।(আমি)
– স্যার বলতাছো কেনো তুমি তো চাকরি ছেড়ে দিছো।(স্যার)
– তবুও স্যার অনেক দিন কাজ করছি তাই স্যার বলাটাই ভালো।(আমি)
– আচ্ছা তোমার সাথে আমার কিছু কথা আছে সত্তি বলবা?(স্যার)
– বলেন?(আমি)
– তুমি একদিন একটা মেয়ের কথা বলছিলা আমাকে আমি বলছিলাম না যদি আমি সেই মেয়েটিকে খুজে পাই তাহলে তোমার হাতে তুলে দিবো।তুমি সেদিন মেয়েটির নাম বলোনাই। কিন্তু আমি মেয়েটাকে খুজে পেয়েছি।
তাই তোমার হাতে তুলে দিতে চাই তুমি কালকে সকালে আসবা আমার বাড়িতে।(স্যার)
– না মানে আচ্ছা।(আমি)
ফোনটা কেটে গেলো। আমি গভির চিন্তায় পড়ে গেলাম।
স্যার আবার কোন মেয়েকে খুজে পেলো।
কি যে হবে এখন। এসব নানান কথা ভাবতে ভাবতে
ঘুমিয়ে গেলাম। […]

Please Rate This Post
[Total: 26 Average: 3.4]
Continue Reading